ইতালির ভিসার দাম কত - Italy Visa Information

ইতালির ভিসার দাম কত
বাংলাদেশে ইতালির ভিসার দাম কত

বাংলাদেশের অর্থনীতিতে আয়ের অন্যতম একটি উৎস হলো বৈদেশিক রেমিট্যান্স বা মুদ্রা, মূলত এই রেমিটেন্স বা অর্থ বিদেশে শ্রমিক রপ্তানি করে বাংলাদেশে এসে থাকেন।  পৃথিবীর বিভিন্ন দেশেই প্রবাসী বাংলাদেশীরা বসবাস করে যাওয়ার পৃর্বে জানা উচিত কোন দেশের ভিসার দাম কত।  যারা ইটালিতে যেতে চান তাদের জন্য আজকের ইতালির ভিসার দাম কত এই নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা থাকবে।


ইতালির ভিসার দাম মূলত নির্ভর করবে আপনি কোন কাজের জন্য ইতালিতে প্রবেশের অনুমতি চাইলেন।  জন্য নির্দিষ্ট করে বলা যায় না ইতালির ভিসা সঠিক মূল্য কত হয়ে থাকে তবে ইতালির ভিসা আবেদন করার জন্য ভিসার কি দরকার হয়।  চলুন এক নজরে দেখে নেই ইতালির ভিসার দাম কত  ইতালির ভিসা ফি সমূহ।

মোটা হওয়ার ঔষধ এর দাম কত খাওয়ার নিয়ম

ভিসা টাইপ ভিসা ফী (টাকা) ভিএফএস ফী (টাকা) ব্যাঙ্ক সেবা ফী(টাকা)

বিজনেস            ৭৬০০                   ২৮৫০                    ২৭০

ট্যুরিস্ট            ৭৬০০                   ২৮৫০                          ২৭০

মেডিকেল           ৭৬০০                   ২৮৫০                          ২৭০

ধর্মীয় অনুষ্ঠান     ৭৬০০ /১১০২০    ২৮৫০                           ২৭০

সৌদি আরবে যেতে চাইলে সরাসরি ফোন করে কথা বলুনঃ 01614409593 (গাজী ভাই)

ভিসা টাইপ                                          ভিসা ফী (টাকা) ভিএফএস ফী (টাকা) ব্যাঙ্ক সেবা 

দক্ষ কর্মী (Tirocinio) (৯০ দিন পর্যন্ত) ফ্রী                ২৮৫০            ২৭০

দক্ষ কর্মী (Tirocinio) (৯০ দিনের বেশী)                        ৪৭৫০             ২৮৫০                  ২৭০

ট্যুরিজম                                                                 ৭৬০০              ১৯৩৫          ২৭০

ট্যুরিস্ট /মেডিকেল (বয়স ৬-১২ বছর)                      ৩৮০০              ২৮৫০                 ২৭০

ট্যুরিস্ট /মেডিকেল (বয়স ০-৬ বছর) ফ্রী               ২৮৫০                ২৭০


ভিসা টাইপ                              ভিসা ফী (টাকা) ভিএফএস ফী (টাকা) ব্যাঙ্ক সেবা ফী(টাকা)

 পারিবারিক পুনর্মিলন                     ১১০২০    ২৮৫০                            ২৭০

শিক্ষা (৯০ দিনের বেশি)                    ৪৭৫০              ২৮৫০                   ২৭০

শিক্ষা (৯০ দিনের মধ্যে) ফ্রী          ২৮৫০              ২৭০

আত্মকর্মসংস্থান                             ১১০২০     ২৮৫০                           ২৭০

নাবিক                                           ৭৬০০ /১১০২০ ২৮৫০                    ২৭০

রি- এন্ট্রি                                            ১১০২০                    ২৮৫০                    ২৭০


ইতালির ভিসা আবেদন পদ্ধতি
ইতালির ভিসা আবেদন পদ্ধতি

ইতালির ভিসার আবেদন কিভাবে করবেন

 সরাসরি কেউ আবেদন করতে পারবেন না। ইতালির ভিসা আবেদন পদ্ধতি আপনারা দুইটি পদ্ধতিতে আবেদন করতে পারেন। প্রথম পদ্ধতি- কোন আত্মীয়-স্বজন ইতালিতে থাকলে অথবা পরিচিত বা কাছের কাউকে দিয়ে ইতালি সরকারের কাছে আপনি আবেদন করতে পারেন।

 সিগারেটের উপকারিতা কি জেনে নেই

দ্বিতীয় পদ্ধতি: কোন প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে তাদের সাথে চুক্তি করে আবেদন করাতে পারেন। আবেদন করা মানে ইতালিতে চলে যাওয়া না। আবেদন করার পর আপনি নির্বাচিত হলে বাকি কাজগুলো করতে হবে‌। মনে রাখবেন এই প্রক্রিয়ায় ইতালি যাওয়ার সময় সাপেক্ষ ব্যাপার।


ইতালির ভিসার আবেদন করার যোগ্যতা

আবেদন করার পরে যদি আপনি নির্বাচিত হন তাহলে -পাসপোর্ট, ভোটার আইডি কার্ড,শিক্ষাগত যোগ্যতার সনদ,কাজের অভিজ্ঞতার সনদপত্র(যদি থাকে) লাগবে। অবশ্যই বয়স 18 বছরের বেশি হতে হবে। ছেলে মেয়ে উভয় আবেদন করতে পারবেন।


ইতালি ভিসা খরচ 

ইতালিতে মূলত দুই প্রকারের ভিসা দেওয়া হয় একটি হচ্ছে সিজনাল ভিসা অপরটি হচ্ছে নন সিজনাল ভিসা। ইতালির সিজনাল ইতালি ভিসা খরচ ও মেয়াদ হচ্ছে ছয় থেকে নয় মাস পর্যন্ত আর নন সিজনাল ভিসা হচ্ছে প্রথমেই আপনি কাজের উদ্দেশ্যে ইতালিতে যাচ্ছেন সেটি। 


 এবার আপনাকে ভিসা আবেদন করার সময় জানতে হবে আপনি নন সিজনাল আবেদন করছেন নাকি সিজনাল ভিসা আবেদন করেছেন যদি সিজনাল ভিসা আবেদন করে থাকেন তাহলে 6 থেকে 9 মাসে কত টাকা ইনকাম করতে পারবেন আর কত টাকা দিয়েই বাড়িতে যাবেন সেটি অবশ্যই নিজে একবার চিন্তা করে নিবেন। 

দেহ ব্যবসার ঠিকানা কোথায় হয় দেহ ব্যবসা জেনে নিন

 অবশ্যই মনে রাখবেন সিজনাল ভিসা থেকে নন সিজনাল ভিসার খরচ অনেক বেশী হয়ে থাকে নন সিজনাল ভিসা দিয়ে অনেক বছর কাটিয়ে ফেরা যায় আর সিজনাল ভিসা দিয়ে নয় মাসের বেশি হয়ে গেলে আপনাকে অবৈধ ঘোষণা করা হবে এবং সেখানে আপনার শাস্তি হতে পারে


নোট:

* যেসকল ক্ষেত্রে ভিসা ফী ফ্রী; ৯০ দিনের মধ্যে শিক্ষা এবং দক্ষ কর্মী।

ভিসা ফী ৭৬০০/১১০২০ ভিসা আবেদন এর টাইপ এবং মেয়াদ এর উপর নির্ভর করে।

এছাড়াও এই সাইটে উল্লেক্ষিত অতিরিক্ত সেবা অংশে প্রদত্ত ঐচ্ছিক সেবা এবং তাদের ফী সমুহ উল্লেখ করা আছে।

ইউরো থেকে বাংলাদেশি টাকার রেট প্রতি তিন মাস অন্তর পরিবর্তন হতে পারে।আবেদনকারিগনকে আবেদন করতে আসার আগে ভিসা ফী এবং পরিষেবা ফী সম্বন্ধে


 

Post a Comment

Previous Post Next Post